, মঙ্গলবার, ১৫ জুন ২০২১

মঙ্গলবার

বিষয় :

প্রকাশ :  ২০১৮-০৩-০৫ ১৩:০৬:৪৯

সামরিক খাতের বাজেট ৮ দশমিক এক শতাংশ বাড়িয়েছে চীন।

নিউজ ডেস্ক,বঙ্গনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম.

চলতি বছরে সামরিক খাতের বাজেট গত বছরের চেয়ে ৮ দশমিক এক শতাংশ বাড়িয়েছে চীন। সোমবার চীনের সামরিক খাতে ১৭৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের বাজেট ঘোষণা করা হয়েছে; যা ভারতের সামরিক বাজেটের চেয়ে প্রায় তিন গুণ বেশি। বাংলাদেশি প্রায় ১৪ লাখ ৫০ হাজার কোটি টাকা। সামরিক বাহিনীকে উচ্চাভিলাষী বাহিনীতে পরিণত করার লক্ষ্যে বিশাল এ বাজেট ঘোষণা করেছে চীন।

গত বছর চীনের সামরিক ব্যয় বাড়িয়ে ৭ শতাংশ করা হয়। তবে এ বছর তা বাড়িয়ে ৮ দশমিক এক শতাংশ করা হয়েছে।

ন্যাশনাল পিপলস কংগ্রেসে (এনপিসি) দাখিল করা বাজেট প্রতিবেদন বলা হয়েছে, ২০১৮ সালের প্রতিরক্ষা বাজেট হবে ১ দশমিক ১১ ট্রিলিয়ন ইউয়ান ( ১৭৫ বিলিয়ন ডলার)। গত বছর চীন সামরিক এই বাজেট ১৫০.৫ বিলিয়ন ডলারে বৃদ্ধি করে।

বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্রের পরে বিশ্বে সামরিক খাতে সবচেয়ে বেশি ব্যয় করছে চীন। ২০১৯ সালে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক খাতের বাজেট বাড়িয়ে ৬৮৬ বিলিয়ন ডলার করতে পেন্টাগনের প্রতি আহ্বান জানানো হয়েছে; যা ২০১৭ সালের বাজেটের চেয়ে ৮০ বিলিয়ন ডলার বেশি।

চলতি বছরে চীনের সামরিক খাতের যে বাজেট ঘোষণা করা হয়েছে তা প্রতিদ্বন্দ্বী ও প্রতিবেশি ভারতের সামরিক বাজেটের চেয়ে প্রায় তিনগুণ বেশি। ভারতের বর্তমান সামরিক বাজেটের আকার মাত্র ৪৬ বিলিয়ন ডলার।

চীনের সামরিক বাহিনীকে আধুনিক বাহিনীতে পরিণত করতে, বাহিনীর শক্তিমত্তা ও সক্ষমতা বাড়ানোর ওপর জোর দিয়েছেন দেশটির সশস্ত্র বাহিনীর প্রধান প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং। এমন সময়ই দেশটির বিশাল সামরিক বাজেট ঘোষণা করা হলো।

আরো সংবাদ