, বৃহস্পতিবার, ১ অক্টোবর ২০২০

বৃহস্পতিবার

বিষয় :

প্রকাশ :  ২০১৮-০৩-০৭ ০৯:২৫:৫৭

বাংলাদেশকে ব্যর্থ রাষ্ট্রে পরিণত করার ষড়যন্ত্র চলছে : মির্জা ফখরুল

নিউজ ডেস্ক, বঙ্গনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম.

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, বাংলাদশেকে একটি ব্যর্থ রাষ্ট্র হিসেবে চিহ্নিত করতে ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে। এ কারণে বেগম খালেদা জিয়াসহ বিএনপির নেতাকর্মীদের আটক করে কারাগারে বন্দি রাখা হচ্ছে। তাদের জামিন পর্যন্ত দেওয়া হচ্ছে না।

মঙ্গলবার (৬ মার্চ) জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে কারাবন্দি খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে আয়োজিত বিএনপির মানববন্ধন শেষে সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার বাংলাদেশের গণতন্ত্র ধ্বংস করেছে। এ দেশকে একটি ব্যর্থ রাষ্ট্র হিসেবে চিহ্নিত করতে নানা রকম ষড়যন্ত্র চালাচ্ছে।

তিনি বলেন, মিথ্যা মামলা দিয়ে খালেদা জিয়াকে কারাগারে আটক করে রাখা হয়েছে। প্রায় সাড়ে চার হাজার বিএনপি নেতা-কর্মীকে আটক করা হয়েছে। নির্বাচন থেকে দূরে রাখতে খালেদা জিয়াসহ আমাদের নেতা-কর্মীদের আটক রাখা হয়েছে। তাদের জামিন পর্যন্ত দেওয়া হচ্ছে না।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, ড. জাফর ইকবালের ওপর হামলার ঘটনা কোনো ধরনের তদন্ত না করেই বিএনপিকে দায়ী করা হচ্ছে। আসলে আওয়ামী লীগ এমন ঘটনা ঘটিয়ে বিএনপির ওপর দোষ চাপিয়ে দিচ্ছে।

তিনি বলেন, বর্তমানে দেশের গণতন্ত্র প্রায় হারিয়ে গেছে। দেশের শিক্ষা, স্বাস্থ্য, অর্থনীতি, ব্যবসাসহ সকল সেক্টর ধ্বংস হয়ে যাচ্ছে। যেখানে গণতন্ত্র নেই, সেখানে কোনো ধরনের নির্বাচনে বিএনপি অংশগ্রহণ করবে না। দেশে গণতন্ত্র নিশ্চিত হলেই বিএনপি নির্বাচনে অংশগ্রহণ করবে।

মির্জা ফখরুল আরও বলেন, আমাদের আন্দোলন শুধু খালেদা জিয়াকে মুক্তির জন্য নয়, আওয়ামী লীগের মত একটি স্বৈরাচারী সরকারের হাত থেকে দেশের মানুষকে রক্ষা করতে এ আন্দোলন শুরু হয়েছে।

এ সময় খালেদা জিয়াকে জেল থেকে মুক্তি দিয়ে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করার আহ্বান জানান মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

এ সময় বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মাহবুবুর রহমান, মির্জা আব্বাস, ড. খন্দকার হোসনে ও বিএনপির অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

আরো সংবাদ