, বৃহস্পতিবার, ২৮ মে ২০২০

প্রকাশ :  ২০২০-০৪-০১ ১৩:৩৩:৩৩

বাঁশখালী পৌরসভায় মাইকিং করে লোক জমায়েত কান্ডে সমালোচনায় পৌর মেয়র

জসীম উদ্দীন, বাঁশখালী প্রতিনিধি:

চট্টগ্রাম বাঁশখালী পৌরসভায় গতকাল সন্ধায় হটাৎ করে মাইকিং করতে শোনা যায়। সম্প্রতি মহামারী করোনা ভাইরাস নিয়ে এমনিতেই প্রতিটি মানুষের মনে মনে আতঙ্ক বিরাজ করতেছে। করোনা ভাইরাস এর সচেতনতা না মেনে পৌরসভার রিক্সা-অটোরিক্সা ও টমটম এসোসিয়েশনের ড্রাইভার গুলোকে পৌরসভায় আজ ০১ এপ্রিল ২০২০ বুধবার সকাল ১১ টায় আসার নির্দেশ দেন পৌর মেয়র আলহাজ্ব শেখ সেলিমুল হক চৌধুরী।

আজ সরেজমিনে পৌরসভায় গিয়ে দেখা যায় পৌরসভার প্রধান গেইটে শত শত লোকজন গিছ গিছ করছে। অন্য দিকে পৌরসভার গেইট বন্ধ দেখা যায়। তবে কয়েকজন লোকের সাথে কথা বললে তারা জানায় আমাদের কে গতকাল মেয়র মাইকিং করে এখানে আসার জন্য বলেছে আমরা মেয়র এর ডাকে সাড়া দিয়েছি।
অন্য দিকে করোনা ভাইরাস নিয়ে তারা সর্তকতা অবলম্বন করছে কিনা এ প্রশ্নের জবাবে তারা বলেন এগুলো কিছু আমরা বুঝি না আমাদের আগে জিনিসটা মেয়র এর জানা উচিৎ ছিল এই সচেতনতার ব্যপারে।
যে এখানে মাইকিং করা হচ্ছে এখানে শত শত লোকের সমাগম হবে কেন মাইকিং করলাম।
তবে পৌরসভার ভিতরে ডুকতেই চোখে পডে গরীব অসুহায় মানুষের জন্য পেকেট করা হচ্ছে চাল,ডাল,আলু সহ খাদ্য সামগ্রী।

অন্য দিলে দেশজুড়ে চলছে লকডাউন। নির্দিষ্ট দূরত্ব বজায় রাখার ঘোষণা সরকারীভাবে থাকলেও বাঁশখালী পৌর মেয়র এসব কিছুতে নাই বলে জানা যায়।

তবে কোন কোন রিক্সা-অটোরিক্সা ও টমটম এসোসিয়েশনের ড্রাইভার জানায় বাঁশখালী পৌর মেয়র শেখ সেলিমুল হক চৌধুরীকে আহ্বায়ক করে বিগত ১১ ফেব্রুয়ারী বাঁশখালী পৌরসভাস্থ জলদি মিয়ার বাজার রিক্সা-অটোরিক্সা ও টমটম এসোসিয়েশনের ১১ সদস্য বিশিষ্ট একটি পূর্ণাঙ্গ কমিটির নির্বাচন স্বতঃস্ফূর্তভাবে সম্পন্ন হয়েছে। এই নির্বাচনে নুর মুহাম্মদ নুরু সভাপতি ও আবুল কাশেম সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়। নব নির্বাচিত কমিটির একমাস যেতে না যেতে মেয়র একক সিদ্ধান্তে ওই নির্বাচিত কমিটি বিলুপ্ত করার লক্ষে নিজের মতো করে ভোটবিহীন নতুন একটি পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণার জন্য মূলত সকল ড্রাইভারের গণজমায়েতের আহবান করার অভিযোগ উঠে।

অটোরিক্সা-টমটম এসোসিয়েশনের বর্তমান সভাপতি নুর মুহাম্মদ নুরু বলেন পৌর মেয়র আমাদের সদ্য নির্বাচিত কমিটি বিলুপ্ত করে নিজের একক ক্ষমতা বলে গোপনে বাবুলকে সভাপতি, জামালকে সাধারণ সম্পাদক ও নুরুল আলমকে ক্যাশিয়ার করে একটি পূর্ণাঙ্গ অবৈধ কমিটি গঠন করে। জোর করে অবৈধ কমিটির ঘোষণা প্রদানের জন্য পৌরসদরে মাইকিং করে গণজমায়েতের আহ্বান করে। বেআইনীভাবে একক সিদ্ধান্তে আমাদের নির্বাচিত কমিটি বিলুপ্ত করে মনগড়া কমিটি গঠনের মতো স্বেচ্ছাচারিতার প্রতিবাদ জানাচ্ছি।

এ বিষয়ে পৌর মেয়র শেখ সেলিমুল হক চৌধুরী মাইকিং এর ব্যাপারে সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন আগামীকাল মিয়ার বাজার অটোরিক্সা-টমটম এসোসিয়েশনের সকল সদস্যদের উপস্থিতির জন্য মাইকিং করেছি ঠিক। নতুন করে কমিটি ঘোষণা করার জন্য নয় বরং হিসাবপত্র ঠিক করার জন্য।

আরো সংবাদ