, বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০

বুধবার

বিষয় :

প্রকাশ :  ২০১৮-০৪-০৭ ০৬:৪৬:০৯

খালেদাকে নেয়া হয়েছে বঙ্গবন্ধু মেডিকেলে

নিউজ ডেস্ক, বঙ্গনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম.

কারাবন্দী বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) নেয়া হয়েছে।

শনিবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে তাকে হাসপাতালে নেয়া হয়েছে।

বেসরকারি বিভিন্ন টেলিভিশনের লাইভ ফুটেজে দেখা গেছে, খালেদা জিয়াকে বহনকারী গাড়িবহর পুরান ঢাকার নাজিমউদ্দিন রোড থেকে যে পথে বিএসএমএমইউ-এর দিকে এসেছে সেখানে পুলিশের বাড়তি উপস্থিতি ছিল।

এদিকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের গেটের বাইরে ও ভেতরে পুলিশের উপস্থিতি রয়েছে। এ ছাড়া গেটের বাইরে ফায়ার সার্ভিসের গাড়িও রয়েছে।

বিএনপি চেয়ারপারসন হাসপাতালে ঢোকার সময় হাসপাতালের সামনে বিএনপি নেতাকর্মীদের সঙ্গে পুলিশের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া হয়।

হাসপাতালে খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেখা করার চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়েছেন মির্জা আব্বাসের স্ত্রী আফরোজা আব্বাস। তাকে তাকে কেবিন ব্লকের গেট থেকে ফেরত পাঠিয়ে দেয় পুলিশ।

শনিবার সকাল থেকেই গুঞ্জন ছিল খালেদা জিয়াকে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্যবিএসএমএমইউ-এ নেয়া হতে পারে। তবে এ বিষয়ে নিশ্চিত করে কিছু জানা যাচ্ছিল না।

এরআগে শুক্রবার খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেখা করে বিএনপি মহাসচিব বলেছিলেন, খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্যের অবস্থা বেশি ভালো নয় তবে তার মনোবল শক্ত রয়েছে।

খালেদা জিয়ার চিকিৎসা তার ব্যক্তিগত চিকিৎককে দিয়ে করানোর দাবিও জানান তিনি।

শনিবার খালেদা হাসপাতালে পৌঁছানোর আগে বিএসএমএমইউ-এর জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রশান্ত কুমার মজুমদার জানিয়েছিলেন, কেবন ব্লকের ৫১২ নম্বর কেবিন প্রস্তুত করা হচ্ছে।

খালেদা জিয়ার আজ কী স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হবে বা পরীক্ষা করানোর পর তিনি হাসপাতালেই থাকবেন না আবার তাকে কারাগারে ফিরিয়ে নেয়া হবে তা এখনও নিশ্চিত নয়।

দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) দায়ের করা জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে গত ৮ ফেব্রুয়ারি ৫ বছরের কারাদণ্ড দেন আদালত। পুরান ঢাকার বকশীবাজারে স্থাপিত বিশেষ আদালতের বিচারক ড. আখতারুজ্জামান জিয়া এ রায় দেন।

মামলার রায় ঘোষণার পর খালেদা জিয়াকে নাজিমউদ্দিন রোডে পুরনো কেন্দ্রীয় কারাগারে নেয়া হয়। সেদিন থেকে খালেদা জিয়া কারাগারে আছেন।

আরো সংবাদ